Evergreen Products for eCommerce

Popcorn in BD

Evergreen products বলতে সারাজীবন সবুজ কালার থাকে এমন কিছুনা 🙂  তবে আবার কিছুটা সেরকমই যা চির যৌবনা অথবা সিমিলার কিছু।  আজ সেই ধরনের কিছু Awesome Products এবং ক্যাটেগরি  নিয়ে সংক্ষেপে আলোচনা করবো যা কিনা ই-কমার্স এর জন্য স্বর্ণের খনি মনে করতে পারেন। একবার ভেবে দেখুন যদি এমন হয় যে, একটি প্রোডাক্ট আপানর সাইটে সেল করার জন্য Photography করালেন, Picture Editing করালেন, Content Ready করে আপলোড করলেন। যখন সেল আসলো দেখলেন আর ঐ প্রোডাক্ট মার্কেটে পাউয়া যাচ্ছে না কিংবা উল্টাও হতে পারে যে সেটার আর কোন মার্কেট ডিমান্ডই নেই। তাহলে আপনার সকল প্রচেষ্টা জলে গেল।

তাই যারা অল্প পুজি এবং নিজে একা বা ছোট টিম নিয়ে কাজ করেন তাদের প্রতিটি মুহূর্ত অনেক বেশী মূল্যবান। আর সেই মূল্যবান সময়কে সঠিক ভাবে কাজে লাগানোর জন্য এমন টাইপের প্রোডাক্ট সিলেক্ট করা উচিৎ যা দীর্ঘদিন পরেও মার্কেট ডিমান্ড থাকবে।

 

What is evergreen products for eCommerce?

সংক্ষেপে বলতে গেলে, যে সমস্ত প্রোডাক্ট দীর্ঘদিন মার্কেটে ডিমান্ড থাকে এবং খুব বেশী পরিবর্তন হয়না তাদের কেই সাধারণত এভার গ্রিন ক্যাটেগরির প্রোডাক্ট বলা হয়। তার মানে হল যে প্রোডাক্ট দীর্ঘদিন বিশেষ কোন পরিবর্তন ছাড়া বাজারে সেল হয়, সময়ের সাথে সাথে এর পরিবর্তন খুবই কম।

একটি উদাহরণ দেই তাহলে আরও সুবিধা হবে বুঝতে- গোলাপ জল নিশ্চয়ই চেনেন তাইনা? এখন গোলাপ জল বলার সাথে সাথে আপনার কোন কোম্পানির কথা মনে পড়ছে? আমি যদি খুব বেশী ভুল না করে থাকি তাহলে নিশ্চয়ই “রিগার্ডের গোলাপ জল” এখন যদি একটু খেয়াল করে তাদের বিজনেস এর ইতিহাসের দিকে একটু খোজ নেন তাহলে দেখতে পারবেন তারা প্রায় ৩০ বছর ধরে একই প্রোডাক্ট সেল করে যাচ্ছে। এতো দিনেও সেই প্রোডাক্ট এর তেমন কোন পরিবর্তন হয়নি এবং এখনো মার্কেটে এই প্রোডাক্ট এর ডিমান্ড আছে। তার মানে এটিকে আমরা একটি এভার গ্রিন প্রোডাক্ট হিসেবে ধরতে পারি।

এখন প্রশ্ন আসতে পারে, ই-কমার্স এর জন্য এমন বিরল প্রোডাক্ট পাবো কই? সেটি নিয়ে আমাদের আরও বিস্তারিত আলোচনা রয়েছে একবার চোখ বুলিনে নিতে পারেন ” Niche Products Idea for eCommece“।

 

5 Evergreen Products idea- Ready for eCommece in Bangladesh

শুধু বাংলাদেশের মার্কেটেই না সারা পৃথিবীতেই এমন অনেক মানে লক্ষ লক্ষ প্রোডাক্ট আছে যাদেরকে আমরা এই এভার গ্রিন বা চির সবুজ প্রোডাক্ট হিসেবে ধরে নিতে পারি। এভার গ্রিন প্রোডাক্ট শুধু অনলাইন কিংবা অফলাইন না এটি সমান ভাবে কর্পোরেট, লোকাল মার্কেট থেকে শুরু করে ইন্টারন্যাশনাল মার্কেটেও এর ডিমান্ড আছে এবং থাকবে।

যুগের পর যুগ একটি প্রোডাক্ট চলতে পারে, তবে ই-কমার্স এর ক্ষেত্রে একটি প্রোডাক্ট যদি অন্তত ১/২ বছর পর্যন্ত বিশেষ কোন পরিবর্তন ছাড়া বাজারে চাহিদা থাকে তাকেই সম্পূর্ণ এভার গ্রিন না হলেও বেশ ভালো মানের এভার গ্রিন প্রোডাক্ট হিসেবে ধরা চলে। চলুন তাহলে বাংলাদেশে চলমান এমন ৫ টি এভার গ্রিন প্রোডাক্ট নিয়ে আলোচনা করা যাক-

১. মিষ্টি এবং মিষ্টি জাতীয় খাবার (Sweets)

মিষ্টি একটি উৎকৃষ্ট উদাহরণ হতে পারে এভার গ্রিন প্রোডাক্ট এর জন্য।  এর প্রধান কারন, একটু খেয়াল করলেই দেখতে পাবেন- আপনি ছোট বেলায় যেই সন্দেশ, কাঁচা গোল্লা, চমচম, দই, রসমালাই বা আরও অন্যান্য  মিষ্টি খেয়েছেন এখনো কিন্তু সেই মিষ্টি সেই রকমই আছে (কি জিভে পানি চলে আসলো নাকি 😀 ) এবং হয়তো চলবে আরও যুগের পর যুগ।

অনেক সময় শোনা যায় যে, কোন কোন মিষ্টির দোকান নাকি ৩/৪ পুরুষ বা ১০০ বছরেরও আগের থেকে চলে আসছে। তাহলে বুঝতেই পারছেন এটি কেমন লেভেল এর এভার গ্রিন প্রোডাক্ট। ই-কমার্স অর্থাৎ অনলাইনে অনেকেই এখন বিভিন্ন রকমের মিষ্টি জাতীয় পণ্য সেল করছেন এবং আমার মতে প্রোডাক্ট হিসেবে ই-কমার্স এর জন্য খুবই লোভনীয় একটি প্রোডাক্ট হতে পারে যদি আপনি ঠিক মত সাপ্লাই চেইন মেইন্টেইন করতে পারেন এবং সম্য মত ফ্রেশ প্রোডাক্ট কাস্টমার কে ডেলিভারি দিতে পারেন।

ঘি, মধু (সুন্দরবন এর মধু!) নিয়েও অনেকে চেস্টা করে যাচ্ছেন। আবার অনেকে অধিক মুনাফার লোভে নিন্মমানের পণ্য দিয়ে কাস্টমারদের বিশ্বাস নস্ট করছেন কেউ কেউ। তবে বাণিজ্যিক ভাবে বিপননের পূর্বে অবশ্যই BSTI এর ল্যাব এ টেস্ট সাপেক্ষে অনুমতি নিয়ে নিতে হবে। নাহলে যেকোনো সময় ভ্রাম্যমাণ আদালত কিংবা BSTI পরিচালিত অভিজানে বড় ধরনের ঝামেলায় জরিয়ে যেতে পারেন।

 

২. পোলো টি- শার্ট (Polo T-Shirt)

সলিড কালার পোলো টি-শার্ট এর কথা যদি বলি তাহলে এই ফুল ক্যাটেগরিটি একটি এভার গ্রিন প্রোডাক্ট কেননা হয়ত কালার বা সাইজ আলাদা হতে পারে কিন্তু মেইন ডিজাইন কিন্তু প্রায় একই আছে। Solid color Polo T-Shirt নিয়ে শুরু করতে পারেন আপনার eCommerce business. সলিড কালার বলতে এক কালার এর তৈরি পোলো টি-শার্ট।  এই ধরনের টি-শার্ট এর ডিমান্ড প্রায় সারা বছরই থাকে তবে গরমে এর চাহিদা বেড়ে যায় অনেক গুন।

এখন প্রায় সব ব্র্যান্ড শপেরই প্রায় এই প্রোডাক্ট আছে কিন্তু তার পরেও অনলাইনে এখনো একক ভাবে কোন ওয়েব সাইট নেই যেখান থেকে পছন্দ মত পোলো টি- শার্ট কিনতে পারবেন। তাই এই প্রোডাক্ট এটি evergreen product হিসেবে আপানর eCommerce সাইট এর জন্য স্টাডি করে দেখতে পারেন।

 

৩. মশারী (Masari/Mosquito Net)

মশা শুধু মাত্র আপনার বা আমার কিংবা জাতীয় সমস্যা নয়- এটি প্রথিবির অনেক দেশের সমস্যা। মশা থেকে বাঁচতে আমরা নানাবিধ সরঞ্জাম ব্যাবহার করি এবং তার মধ্যে মশারি অন্যতম এবং বলতে পারেন ৯৮% লোকই মশারি ব্যাবহার করে। এখন পর্যন্ত অনেক নতুন কৌশল যেমন- মশার কয়েল, মশা তাড়ানোর মেশিন (Mosquito Repellers) আরও অনেক কিছু আসলেও মশারীও সবার শেষ ভরসা।

যদি একটু খেয়াল করি তাহলে গত ২/৩ দশকে মশারীতে তেমন কোন কিছুই পরিবর্তন আসেনি। তবে হ্যাঁ একটু আপগ্রেড নিশ্চয়ই হয়েছে। ম্যাজিক মশারীর কথা নিশ্চয়ই শুনেছেন 🙂 আমার মনে হয় এইটুকুই শুধু পরিবর্তন এসেছে।

 

 

৪. Popcorn

 

৫. গরুর দুধ (Cow Milk)

এটি

 

3 Comments


  1. ভাই, ঘি বা মধু এর বিএসটিআই অনুমোদন নিতে কি পরিমাণ জামেলা হতে পারে । আর যদি আচার নিয়ে কাজ করি তাহলে সফলতার সম্ভবনা কতটুকু।
    ধন্যবাদ সুন্দর পোষ্ট করার জন্য।

     

Leave a Reply